Home | About Us | Porshi Team | Porshi Patrons | Event Announcement | Contact Us
হোমপেজ পুরনো সংখ্যা: সূচীপত্র  শিল্প সংস্কৃতি  ||  ১০ম বর্ষ ৩য় সংখ্যা আষাঢ় ১৪১৭ •  10th  year  3rd  issue  Jun - Jul  2010 পুরনো সংখ্যা
অবয়ব নাট্যদল Download PDF version
 

শিল্প-সংস্কৃতি

 

অবয়ব নাট্যদল

 

ইসমত আরা বেগম

 

 

অবয়ব নাট্যদল’ পথ নাটকসহ মোট ২০টি মঞ্চ নাটক দর্শকদের উপহার দিয়েছে। অবয়ব যাত্রা শুরু করে ১৯৯৭ সালের ৪ এপ্রিল তারিখ থেকে। পড়শীর পক্ষ থেকে আমি কথা বলেছিলাম শহিদুল হক খানের সাথে যিনি প্রায় ১০/১২ বছর এর সাধারণ সম্পাদক ছিলেন। বর্তমানে কার্যকরী সদস্য হিসেবে অবয়বের সাথে যুক্ত আছেন।

 

পড়শী : অবয়বের প্রথম নাটক কোনটি?

শহিদুল : এর প্রথম নাটকের নাম ‘খুন’।

 

পড়শী : এর নাট্যকর্মী কতজন?

শহিদুল : আমাদের প্রায় ত্রিশজন নিয়মিত নাট্যকর্মী আছে।

 

পড়শী : অবয়বের কোন নাটকটি খুব জনপ্রিয়তা পেয়েছে?

শহিদুল : ‘ভীমরতি’ নাটকটি খুব জনপ্রিয়  হয়েছিল। ঢাকার সব মঞ্চে মঞ্চস্থ হয়েছিল এটি। এছাড়াও পার্বতীপুরে মঞ্চস্থ হয়েছিল।

 

পড়শী : মঞ্চে নাটক করতে যেয়ে কি ধরণের সমস্যা দেখা দেয়?

শহিদুল : মহিলা সমিতিতে অনেক নাটক মঞ্চস্থ হতো। সেখানে বড় সমস্যা ছিল বিদ্যুৎ না থাকা। আমাদের মেয়ে নাট্যকর্মীরা রিহার্সেলের সময় আসা-যাওয়া করতে সমস্যার সম্মুখীন হয়। রিহার্সেল রুম  আমাদের নিজস্ব নয়, রুম  ভাড়া নিতে হয়। এছাড়াও কর্মীরা সবাই চাকরি শেষে রিহার্সেল রুমে  আসার সময় যানজটের মধ্যে পড়ে বিপর্যস্ত হয়।

 

পড়শী : মঞ্চ নাটকের আসল সমস্যাগুলি কি কি?

শহিদুল : পৃষ্ঠপোষকতার অভাবে আমাদের এই শিল্পটি এখনও সমস্যাগ্রস্ত। অন্যান্য দেশের সরকার পৃষ্ঠপোষকতা করে তাদের এই শিল্পকে এগিয়ে  নিয়ে যাচ্ছে। আমাদের দেশে ভালো কাজ করতে চাইলে পাশের বাড়ির লোকটিও বাধা দেয়। আমাদের মধ্যে ভিতর থেকে পরিবর্তন তেমন আসেনি। এর পেছনে হয়তো নাট্যকর্মীদের আচরণও কিছুটা দায়ী।

 

পড়শী : আপনারা ডিশ টিভির চ্যানেলগুলোতে কেন নাটক পরিবেশন করছেন না?

শহিদুল : এক সময় বাংলাদেশ টেলিভিশন নিয়েমিতভাবে মঞ্চ নাটক প্রচার করতো। বর্তমানেও কিছু হচ্ছে। তবে থিয়েটার ফেডারেশন বললে আমরা চ্যানেলগুলোতে নাটক পরিবেশন করবো।

 

পড়শী : নাটক মঞ্চস্থ করার সময় কখনও  কোন বাধা কি পেয়েছিলেন বা কোন ঘটনা কি ঘটেছিল?

শহিদুল : নাটকের শো শুরু  হয় সন্ধ্যা ৭টার সময়। এটা ১৯৯৭ সালের দিকের একটি ঘটনা। মহিলা সমিতিতে বিকাল ৪টা/৪:৩০টার দিকে অর্থাৎ নাটক আরম্ভ হওয়ার অনেক আগে আমাদের  এক মহিলা কর্মীকে তার হাজব্যান্ড হাত ধরে টেনে নিয়ে চলে গিয়েছিলেন। পরে অন্য একজনকে তার ভূমিকায় আনা হয়েছিল। এর জন্য আমাদের থিয়েটাররের কেউ অবশ্য দায়ী ছিল না।

 

পড়শী : এ পর্যন্ত বাংলাদেশের কোন কোন জেলায় নাটক মঞ্চস্থ করেছেন?

শহিদুল : আমরা এ পর্যন্ত টাঙ্গাইল, দিনাজপুর, নারায়ণগঞ্জ, বরিশাল, হবিগঞ্জ ইত্যাদি জেলায় নাটক  পৌছে দিয়েছে।

 

পড়শী : অবয়বে প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা কেমন?

শহিদুল : আমরা লীয়ভাবে ওয়ার্কশপের আয়োজন করি। কখনও বাইরের ওয়ার্কশপেও কর্মীদের পাঠানো হয়।

 

পড়শী : কোন বয়সী দর্শকরা মঞ্চ নাটক উপভোগ করে থাকে?

শহিদুল : দর্শকরা প্রায়ই ত্রিশের বেশি বয়সী। নাটক যারা একটু বোঝেন তারাই দর্শক হয়ে আসেন। ‘ভূ-মধ্যসাগর’ নাটকটিতে অর্থলোভী কিছু ব্যবসায়ীকে দেখানো হয়েছে যারা বিদেশে মানুষ পাঠানোর নামে মোট র্ংকের টাকা নিচ্ছে আর অসহায় কিছু যুবককে নি:স্ব করে দিচ্ছে। এ ধরণের নাটক প্রদর্শনের পেছনে আমাদের সামাজিক দায়বদ্ধতা আছে।

 

পড়শী : বাংলাদেশে মঞ্চ নাটকের ভবিষ্যৎ কেমন?

শহিদুল : ভবিষ্যৎ ভালো। ভালো হলেও মানসিক ও আর্থিক পৃষ্ঠপোষকতার প্রয়োজন। কলকাতা বা মিশরের থিয়েটার আমাদের চেয়ে পিছিয়ে ছিল। অথচ ওরা আমাদের চেয়ে অনেক এগিয়ে গেছে। আমাদের আরও অনেক দূর যাওয়ার কথা ছিল। রাজনৈতিক বা সামাজিক অস্থিরতার কারণে তা সম্ভব হয়নি।

 

পড়শী : আপনি মঞ্চে আসলেন কি নিজের ইচ্ছায় না অন্যের হাত ধরে?

শহিদুল : আমার কাজিন আর এক মামা নাটকের সাথে যুক্ত ছিল। ওদেরকে দেখেই আমি উৎসাহী হয়ে উঠি। কাজ করতে করতেই কাজ শিখেছি। অন্যান্য দলের কাজ দেখেও শিখে নিয়েছি।

 

পড়শী : আপনি এছাড়া আর কি করেন? কতদিন নাটকের সাথে যুক্ত থাকতে চান?

শহিদুল : আমি বর্তমানে UNDP তে কর্মরত আছি। অবয়ব নাট্যদলের আমি কার্যকরী সদস্য হিসেবে কাজ চালিয়ে যাচ্ছি। ‘ভূ-মধ্যসাগরে’ নাটকটির নির্দেশক আমি। জুন মাসের ৩ তারিখে নাটকটির শো অনুষ্ঠিত হবে শিল্পকলা একাডেমীতে। নাটক আসলে একটা নেশা। তাই শেষ বয়স পর্যন্ত আমি নাটকের সাথে যুক্ত থাকতে চাই।

 

মন্তব্য:
এ সপ্তাহের জরীপ

প্রেসিডেন্ট ওবামা ঠিকমত দেশ চালা্চ্ছেন।

 
Code of Conduct | Advertisement Policy | Press Release | Hard Copy Archive
© Copyright 2001 Porshi. All rights reserved.