Home | About Us | Porshi Team | Porshi Patrons | Event Announcement | Contact Us
হোমপেজ পুরনো সংখ্যা: সূচীপত্র  অদ্ভুত উটের পিঠে  ||  ১০ম বর্ষ ৩য় সংখ্যা আষাঢ় ১৪১৭ •  10th  year  3rd  issue  Jun - Jul  2010 পুরনো সংখ্যা
অদ্ভুত উটের পিঠে Download PDF version
 

অদ্ভুত উটের পিঠে

 

 



এহসান নাজিম

 

বাংলাদেশে উট নাই। তবু কি করে যেন আমাদের পড়শী একটা উট জোগাড় করে তার পিঠে চড়ে সমগ্র স্বদেশ ভ্রমণ করতে থাকেন আর ঘটে যাওয়া সব অদ্ভুত কান্ড আমাদের শোনাতে চান ছোট করে-

 

রাজধানী!

     পৃথিবীর আর কোন দেশের রাজধানীতে এমন হয় কিনা জানা নেই তবে ঢাকা যে ব্যতিক্রম তা বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন কর্তৃপক্ষের (বিআরটি) ২০০৯ সালের নিবন্ধন তালিকা থেকে বঝা যায়। ঢাকায় দৈনিক গড়ে ২২৭ টি যানবহন নিবন্ধিত হয়,যার মধ্যে ব্যক্তিগত গাড়ীর ( কার- মাইক্রো-জিপ) সংখ্যা ৯৮। এরপর মোটরসাইকেল যার সংখ্যা ৮৮টি। বাসের নিবন্ধন খুবই কম, মাত্র ৪টি। বাকি ৩৫টি যানবাহনের মধ্যে রয়েছে ট্রাক,টেম্পো,পিক অ্যাপ, ভ্যান ইত্যাদি। নতুন নতুন গাড়ির চাপে ঢাকা সড়ক ভরে গেলেও পুরনো গাড়ি উচ্ছেদ হচ্ছে না- রাস্তা বাড়ানোর তো জায়গাই নাই। গ পরিবহনের দূরবস্থার কারণে ঢাকায় ৯০ হাজার প্রাইভেট কার নেমেছে,অথচ বাস নেমেছে হাজার ৪৫৩টি। ২০০৯ সাল পর্যন্ত এক হিসাবে ঢাকায় ব্যক্তিগত গাড়ির সংখ্যা দুই লাখ ১৬ হাজার। আর মোট যানবাহনের সংখ্যা পাঁচ লাখ ২৭ হাজার। পড়শী ভেবে পেলোনা কি করে ঢাকা বিশ্বের অন্যতম গরীব রাষ্ট্রের রাজধানী হয়েও এতো প্রাইভেট কার নিজের বুকে ধারন করে জীবন যাপন করছে! আসলেই জীবন যাপন করছে না ধুকঁছে!!

গ্রেফতার!

২০০৭ সালে শায়খ রহমান,বাংলাভাই সহ কতিপয় জঙ্গি (জেএমবি) নেতার ফাঁসির পর হবিগঞ্জের সাইদুর রহমান নিষিদ্ধ ঘোষিত এ সংগঠনটিকে পুনর্গঠ করা শুরু করে। সম্প্রতি এই সাইদুর রহমান তার তিন সহযোগী ও তৃতীয় স্ত্রী সহ পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়। তবে পড়শী বিস্মিত হলো যখন তথাকথিত এই জঙ্গি নেতার অতীত ইতিহাস জানতে পারলো। পুলিশ সদর দপ্তরের তথ্য অনুযায়ী সাইদুর রহমান ১৯৭৭ সালে ইসলামী ছাত্রশিবিরে যোগ দেন। ১৯৭৮-৮০ সাল পর্যন্ত শিবিরের মৌলভীবাজার সাংগঠনিক জেলার সভাপতি ছিলেন। ১৯৮০ সালে তাফসির এবং ১৯৮১ সালে টাইটেল পাস করেন। ১৯৮১ সালে শিবিরের হবিগঞ্জ-মৌলভীবাজার সাংগঠনিক জেলার সেক্রেটারী হন। ১৯৮৬ সালে জামাতের হবিগঞ্জ জেলার আমির হন। একই সঙ্গে জামাতের কেন্দ্রীয় মজলিশে শূরার সদস্য হন। অতঃপর ২০০৬ সালে জেএমবির আমির হন। পড়শীর যতদূর মনে পড়ে জেএমবির আগের আমিরেরও অতীতে জামাতের সাথে সমর্পক ছিলো। জামাত থেকে জিএমবিতে যাওয়া কি আদর্শগত দ্বন্দ্বের কারণে নাকি জেএমবি জামায়াতের সামরিক উইং? একটি প্রকাশ্য রাজনীতি করবে আর অপরটি আন্ডার গ্রাউন্ডে? এসব ভাবতে ভাবতেই পড়শী দেখতে পেলো দেশের এক শীর্ষস্থানীয় পত্রিকায় সাইদুরের পুলিশের কাছে জবানবন্দীর কিছু অংশ- বর্তমান সরকার ক্ষমতায় আসার পর জেএমবির বিদেশ থেকে অর্থ আসা প্রায় বন্ধ হয়ে যায়। এ পর্যায়ে তারা একটি রাজনৈতিক দলের শরণাপন্ন হন এবং এ দলের দেয়া অর্থেই জেএমবির কার্যক্রম চলছিল ...

বিচারকেরা!

বিচারক নিয়োগ নীতিমালার অন্যতম শর্ত- উৎকৃষ্ট শিক্ষাগত যোগ্যতা কথা বলা হলেও হাইকোর্টে সদ্য নিয়োগ পাওয়া ১৭জন অতিরিক্ত বিচারকের মধ্যে ৯ জনই এলএলবিতে তৃতীয় শ্রেনীপ্রাপ্ত। ঠিক আছে  পড়শীমেনে নিলো যে একজন ভাল ছাত্র সবসময় যেমন ভাল শিক্ষক হতে পারেনা,তেমনি হয়তো তা বিচারকের ক্ষেত্রেও প্রযোজ্য। কিন্তু ভ্রু কুচঁকে গেলো যখন সুপ্রীম কোর্ট আইনজীবি সমিতি বিচারকদের জীবন বৃত্তান্ত প্রকাশ করলো। অনেকেই তাদের জীবনীতে বিভিন্ন পরীক্ষা ফলাফলের উল্লেখ করেননি। কেউ কেউ দু একটি পরীক্ষার ফলাফল উল্লেখ করলেও অনেকেই আবার কোন প্রতিষ্ঠান থেকে এলএলবি ডিগ্রী পেয়েছেন তা জানাননি। পড়শী সবারটা পড়লেও এখানে দুএকটা উল্লেখ করছে শুধুমাত্র পাঠকের চিন্তার খোরাক জোগানোর জন্য। যেমন- এ কে এম জহিরুল হক তার জ্যেষ্ঠ ছেলে ঠিকাদার আর মেয়ে জামাই পিএইচডি করার মতো তথ্য দিলেও নিজের পাবলিক পরীক্ষার ফল গোপন রেখেছেন। জাহাঙ্গীর হোসেনের আপীল বিভাগের আইনজীবি হবার আবেদন মঞ্জুর হয়নি। তিনি এসএসসি ও এলএলবিতে ৩য় শ্রেনী প্রাপ্ত। তবে মামলা পরিচালনার তথ্য হিসাবে বঙ্গবন্ধু হত্যা মামলায় আপিল বিভাগকে সহায়তা ও একই মামলায় দায়রা আদালতে বিশেষ পিপির দায়িত্ব পালন করেন বলে জানিয়েছেন। মোঃ হাবিবুল গনি তার জীবন বৃত্তান্তে ১৫ বার দেশে-বিদেশে রক্তদানের তথ্য দিলেও সকল পরীক্ষায় যে তৃতীয় শ্রেনী পেয়েছেন তা দেননি। গোবিন্দ চন্দ ঠাকুর কোন পরীক্ষার ফল প্রকাশ না করলেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে এসে ৮৪ সালে সেলিম-দেলোয়ারের সঙ্গে ট্রাক চাপার ঘটনায় আহত হবার তথ্য দিয়েছেন। একজন তো তার বর্তমান স্থায়ী ঠিকানা খুলনার দৌলতপুর উল্লেখ করার সাথে সাথে একসময় যে তা গোপালগঞ্জের বিজয় পাশায় ছিলেন তাও উল্লেখ করেছেন। পাঠক কি কিছু বুঝতে পারছেন? বিচারক নিয়োগের দলীয়কর সেই যে ৯৪ সাল থেকে শুরু হয়েছে,এরপর থেকে কে কার চেয়ে বেশী দলীয় মনোভাবাপন্ন লোককে বিচারক বানাতে পারে তারই প্রতিযোগিতা চলছে।

চর!

আইন প্রতিমন্ত্রী কোন রকম অগ্র-পশ্চাৎ না ভেবে এবং শিষ্টাচারের তোয়াক্কা না করে সম্প্রতি জিয়াউর রহমানকে পাকিস্তানের চর বলে অভিহিত করে সমালোচনায় সন্মুখীন হন। এ প্রসঙ্গে তিনি চ্যালেঞ্জ করে টিভি টকশোতে অংশগ্রহণেরও আগ্রহ প্রকাশ করেন। হয়তো কারো ধমক খেয়ে বা আত্মউপলব্ধি করতে পেরেই কিনা পরদিন অন্য এক জনসভায় নিজের অবস্থান থেকে সরে এসে স্বাধীনতা যুদ্ধে জিয়ার ভূমিকার প্রশংসা করে বলেন, ২৭শে মার্চে বঙ্গবন্ধুর হয়ে তার স্বাধীনতার ঘোষণা বাঙালিদের জন্য অনুপ্রেরণার কার হয়েছিলো। তবে ক্ষমতায় আসার পর জিয়ার রাজাকার শাহ আজিজ,আলিমদের মন্ত্রী বানানো,গোঃ আজমকে দেশে আনা,জামাত-শিবিরের রাজনীতিতে প্রবেশাধিকার,দালাল আইন বাতিল করাকে তিনি জিয়ার স্বাধীনতা যুদ্ধকালীন অবস্থান থেকে সরে আসা বলেও মন্তব্য করেন। আর পড়শী ভাবছে সব আমলেই কিছু কিছু মন্ত্রী থাকে যারা তোষামোদের তোড়ে উল্টা পাল্টা কথা বলে আসলে জনগকে ধোঁকা দেবার চেষ্টা করেন।
সাদা!

সাদার চেয়েও সাদা মানে সাদাকে আরও সাদা করা। সম্প্রতি খালেদা জিয়া কালো টাকাকে সাদা করেছেন এমন অভিযোগের পর তার আইনজীবি জানান যে সাবেক প্রধান মন্ত্রী আসলে সাদা টাকার উপরই আয়কর দিয়েছেন। আর তার কাছে অনেক কিছুর হিসাব না থাকার কারণে এই বৈধ টাকাগুলোর উপর আয়কর নির্ধার করা হয়েছিলো। এর জবাবে সরকার দলীয় সহ-সাধার সম্পাদক খালেদার টি এন নাম্বার প্রকাশ করে মালওয়ারী কত টাকার বিপরীতে কত টাকা আয়কর দিয়েছে তার তথ্য প্রকাশ করে। এর পরিপ্রেক্ষিতে একদল বলছে,এভাবে জনসন্মুখে গোপন আয়কর তথ্য প্রকাশ করা যায় না। আর আরেকদল বলছে,দেশের জনপ্রতিনিধিদের তথ্য ব্যক্তিগত নয়,তা জানার অধিকার সবার আছে। আছে বৈকি- তবে যতক্ষ পর্যন্ত এসকল তথ্য রাজনৈতিক ফায়দা লাভের জন্য ব্যবহার করা না হবে ততক্ষ পর্যন্ত। কিন্তু বাস্তব তো শুধু কাঁদা ছোড়াছুড়িই সার।


ঘটনাকাল
: মে ২০১০

 

মন্তব্য:
erewre   May 27, 2016
Since then other biometric shirts have popped up, including ones that use micro-EMG sensors to measure muscle effort Ralph Lauren Polo , made by a Redwood City-based company called Athos. (Earlier this year I reviewed a pair of Athos pants, as did The Verge's Ben Popper.) OmSignal, the company that partnered with Ralph Lauren for the PoloTech Shirt, sells its connected compression shirts separately — although both the PoloTech shirts and OmSignal's Ralph Lauren Hats own shirts are only available for men. But David Lauren, executive vice president for advertising, marketing, and communications at Ralph Lauren Ralph Lauren Scarves , said in an interview that women's smart shirts are on the way. The company is working on making more casual connected apparel — such a polo shirt that could be worn all day, not just during exercise. And Lauren said a smart suit was not out of the realm of possibilities Ralph Lauren Short Sleeved T-Shirts . (I just cannot even, with this level of Bluetooth-connected Americana.) As you might expect, there's a Ralph Lauren mobile app that syncs data from the PoloTech shirt Ralph Lauren Shoes . It's iOS-only at launch and currently doesn't integrate with other third-party fitness applications. Still, the aim with the app is to offer real-time analysis and workout suggestions based on the biometrics you're showing Ralph Lauren Jackets & Outerwear , which means Ralph Lauren is at least aware of one key problem with connected health and fitness devices: there are many that can track what you do, but not as many that tell you what to do next.
Enamul   July 10, 2010
ভালো হয়েছে............ এইগুলা আমাদের মহান রাজনীতিকরা পড়ে থাকলে আরো ভালো লাগত
তাসনীম   July 8, 2010
নাজিম, চালায়ে যা বন্ধু, দারুণ হচ্ছে। বহুদিন আগেই আমরা চড়েছি এই উদ্ভট উটের পিঠে, বেশ দ্রুতই ছুটছে এই উট মনে হয় আজকাল...
Motahar   July 7, 2010
Nazim, Chaliye jao. Kharap na. Mone hochchhe deshe thakle supreme courte er bicharok hobar ekta chance nite partam, karon amar english er number third division er khubi kachhakachhi chhilo. Tachhara resume te aro likhte partam je ami ek pagol ke chini je Porshi te kolam lekhe!!
এ সপ্তাহের জরীপ

প্রেসিডেন্ট ওবামা ঠিকমত দেশ চালা্চ্ছেন।

 
Code of Conduct | Advertisement Policy | Press Release | Hard Copy Archive
© Copyright 2001 Porshi. All rights reserved.